ধ্বনি ও বর্ণ সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন

ধ্বনি ও বর্ণ সম্পর্কে কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নঃ
=======================
# বাংলা বর্ণমালায় মোট বর্ণ আছে ৫০টি।(স্বরবর্ণ ১১টি + ব্যঞ্জণবর্ণ ৩৯টি)

# বাংলা বর্ণমালায় মোট স্বরবর্ণ ১১টি(হ্রস্ব স্বর ৪টি + দীর্ঘ স্বর ৭টি)

# বাংলা বর্ণমালায় মোট ব্যঞ্জণবর্ণ ৩৯টি(প্রকৃত ৩৫টি + অপ্রকৃত ৪ টি)

# বাংলা বর্ণমালায় পূর্ণমাত্রাযুক্তবর্ণ আছে ৩২টি (স্বরবর্ণ ৬টি + ব্যঞ্জণবর্ণ ২৬টি)

# বাংলা বর্ণমালায় অর্ধমাত্রাযুক্তবর্ণ আছে ৮টি (স্বরবর্ণ ১টি + ব্যঞ্জণবর্ণ ৭টি)

# বাংলা বর্ণমালায় মাত্রাহীন বর্ণআছে ১০টি (স্বরবর্ণ ৪টি + ব্যঞ্জণবর্ণ ৬টি)

# বাংলা বর্ণমালায় কার আছে এমন স্বরবর্ণ ১০টি (“অ” ছাড়া)

# বাংলা বর্ণমালায় ফলা আছে এমনব্যঞ্জণবর্ণ ৬টি (য,র,ল,ব,ন/ণ,৭)

# বাংলা বর্ণমালায় স্পর্শধ্বনি/বর্গীয় ধ্বনি আছে ২৫টি (ক থেকে ম পর্যন্ত)

# বাংলা বর্ণমালায় কন্ঠ/জিহবামূলীয়ধ্বনি আছে ৫টি (“ক” বর্গীয়ধ্বনি)

# বাংলা বর্ণমালায় তালব্য ধ্বনি আছে৮টি (“চ” বর্গীয় ধ্বনি + শ,য, য়)

# বাংলা বর্ণমালায় মূর্ধন্য/পশ্চা ৎদন্তমূলীয় ধ্বনি আছে ৯টি (“ট” বর্গীয়ধ্বনি + ষ, র, ড়, ঢ়)

# বাংলা বর্ণমালায় দন্ত্য ধ্বনি আছে৭টি (“ত” বর্গীয় ধ্বনি + স,ল)

# বাংলা বর্ণমালায় ওষ্ঠ্য ধ্বনি আছে৫টি (“প” বর্গীয় ধ্বনি)

# বাংলা বর্ণমালায় অঘোষ ধ্বনি আছে১৪টি (প্রতি বর্গের ১ম ও ২য় ধ্বনি + ঃ, শ, ষ, স)

# বাংলা বর্ণমালায় ঘোষ ধ্বনি আছে১১টি (প্রতি বর্গের ৩য় ও ৪র্থ ধ্বনি + ৫ম +হ) (মনে রাখুন ঘোষ রা নিচু বর্ণের মানুষ তাই তারা পিছনে বসে । )

# বাংলা বর্ণমালায় অল্পপ্রাণ ধ্বনিআছে ১৩টি (প্রতি বর্গের ১ম ও ৩য় ধ্বনি + শ, ষ, স)

# বাংলা বর্ণমালায় মহাপ্রাণ ধ্বনিআছে ১১টি (প্রতি বর্গের ২য় ও ৪র্থ ধ্বনি + হ)

# বাংলা বর্ণমালায় নাসিক্য/অনুনাসিকধ্বনি আছে ৮টি (প্রতি বর্গের ৫ম ধ্বনি + ং, ৺, ও)

# বাংলা বর্ণমালায় উষ্ম ধ্বনি৪টি (শ, ষ, স, হ)

# বাংলা বর্ণমালায় অন্তঃস্থ ধ্বনি৪টি (ব, য, র, ল)

# বাংলা বর্ণমালায় পার্শ্বিক ধ্বনি১টি (ল)

# বাংলা বর্ণমালায় কম্পনজাত ধ্বনি১টি (র)

# বাংলা বর্ণমালায় তাড়নজাত ধ্বনি১টি (ড়, ঢ়)

# বাংলা বর্ণমালায় পরাশ্রয়ী ধ্বনি৩টি (ং, ঃ, ৺)

# বাংলা বর্ণমালায় অযোগবাহ ধ্বনি২টি (ং, ঃ)

# বাংলা বর্ণমালায় যৌগিক স্বরজ্ঞাপকধ্বনি ২টি (ঐ, ঔ)

# বাংলা বর্ণমালায় যৌগিক স্বরধ্বনি২৫টি ( সর্বসাকুল্যে)
# বাংলা বর্ণমালায় খন্ডব্যঞ্জণধ্বনি ১টি (ৎ)

# বাংলা বর্ণমালায় নিলীন ধ্বনি ১টি(অ)

# বাংলা বর্ণমালায় হসন্ত/হলন্ত বর্ণবলা হয় ক্, খ্, গ্ এধরণের বর্ণকে
• শ,ষ,স,হ- উষ্ম বর্ণ।
• শ,ষ,স- শীষ ধ্বনি।
• হ- ঘোষ ধ্বনি।
=======================
২২.পুরস্কার, পরিষ্কার, আবিষ্কার…. ইত্যাদি কিছু শব্দে ‘স’ না ‘ষ’ ব্যবহূত হবে তা নিয়ে আমরা অনেক সময় দ্বিধা-দ্বন্দ্বে ভুগি। এ বিষয়ে পরিষ্কার ধারণার জন্য লক্ষ্য কর —

পুর + ঃ + কার = পুরস্কার অ + ঃ + কার = স

পদ + ঃ + খলন = পদস্খলন অ + ঃ + খলন = স

তির + ঃ + কার = তিরস্কার অ + ঃ + কার = স

পরি + ঃ + কার = পরিষ্কার ই + ঃ + কার = ষ

দু + ঃ + কর = দুষ্কর উ + ঃ + কর = ষ

ধনু + ঃ + টঙ্কার = ধনুষ্টঙ্কার উ + ঃ + টঙ্কার = ষ

তাহলে দেখা গেল, শব্দকে ভাঙালে যদি ‘অ’ এর পরে বিসর্গ ধ্বনি আসে তাহলে ‘স’ ব্যবহূত হবে আর যদি ‘অ’ ভিন্ন অন্য স্বর ( যেমন : ই, উ ইত্যাদি) আসে তাহলে ‘ষ’ ব্যবহূত হবে। আশা করি এ ব্যাপারে আর কোন দ্বিধা-দ্বন্দ্ব থাকবে না।

কোন কোন ক্ষেত্রে সন্ধির বিসর্গ লোপ হয় না। যেমন :

প্রাতঃ + কাল = প্রাতঃকাল
.
মনঃ + কষ্ট = মনঃকষ্ট
.
শিরঃ + পীড়া = শিরঃপীড়া।
.
তবে এ প্রসঙ্গে আমাদের কয়েকটি বিশেষ বিসর্গ সন্ধির কথাও মনে রাখতে হবে। যেমন :
.
বাচঃ + পতি = বাচস্পতি
.
ভাঃ + কর = ভাস্কর
.
অহঃ + নিশা = অহর্নিশ
.
অহঃ +অহ= অহরহ
.
প্রাত: + আশ= প্রাতরাশ